8721 পঠিত

এনসিএল ২০১৮

রাজিনের রাজসিক বিদায়

blank হাসিব অয়ন
০৮ নভেম্বর, ২০১৮ | আপডেট: ০৮ নভেম্বর, ২০১৮
blank হাসিব অয়ন
রাজিনের রাজসিক বিদায়
ছবি- সংগৃহীত A-A+

|| ডেস্ক রিপোর্ট ||

এনসিএলের ষষ্ঠ এবং শেষ রাউন্ডের খেলা ড্র দিয়ে শেষ করেছে  সিলেট এবং ঢাকা বিভাগ। কক্সবাজারের শেখ কামাল স্টেডিয়ামে টায়ার-২ এর এই ম্যাচ ড্রয়ের মধ্য দিয়ে পয়েন্ট টেবিলের শীর্ষে অবস্থান করছে ঢাকা বিভাগ এবং তিনে অবস্থান সিলেটের।

রাজিন সালেহের বিদায়ী টেস্টে দুই ইনিংসে টানা দুইটি অর্ধশতক এবং ঢাকার আব্দুল মজিদের অনবদ্য শতক ও সিলেটের এনামুল হক জুনিয়রের হ্যাট্রিকে ম্যাচটির ফলাফল ড্রয়ে পরিণত হয়। দুই ইনিংসে ১৫৪ রান করে ম্যাচ সেরার পুরষ্কারটি পেয়েছেন অবসরে যাওয়া রাজিন সালেহ।

সোমবার টস জিতে ব্যাটিংয়ের সিদ্ধান্ত নিয়েছিল সিলেট বিভাগ। প্রথম দিন ব্যাটিং করে ছয় উইকেটে ২২০ রান করেছিল তাঁরা। দ্বিতীয় দিনের সকালে নয় ওভার খেলতেই দলটি সব উইকেট হারিয়ে ফেলে। ২৩৮ রানে শেষ হয় সিলেটের প্রথম ইনিংস।

প্রথম ইনিংসে ব্যাট হাতে ৬৭ রান করেছিলেন সিলেটের অধিনায়ক এবং অবসরের ঘোষণা দেয়া রাজিন সালেহ। এছাড়া ৫৫ রানে অপরাজিত ছিলেন জাকের আলি। ঢাকার হয়ে সর্বোচ্চ তিন উইকেট নিয়েছিলেন শাহাদাত হোসেন রাজিব। এছাড়া দুইটি করে উইকেট নিয়েছেন মোশাররফ হোসেন, শুভাগত হোম এবং সাইফ আহমেদ।

এরপরেই নিজেদের প্রথম ইনিংসে ব্যাটিংয়ে নামে ঢাকা বিভাগ। ২৩৬ রানে চার উইকেট হারিয়ে দিন শেষ করে তাঁরা। তৃতীয় দিনের দ্বিতীয় সেশনে অলআউট হয়ে যায় ঢাকা। আব্দুল মজিদের ১০৪ রানের ইনিংস এবং শেষের দিকে মোশাররফের ৫০ রানের ইনিংসে ৩৪৬ রানে শেষ হয় ঢাকার প্রথম ইনিংস।

১০৮ রানের লিড পায় ঢাকা বিভাগ। সিলেটের হয়ে বল হাতে হ্যাট্রিক করেন এনামুল হক জুনিয়র। তৃতীয় দিনে ঢাকা বিভাগের ইনিংসের ৭৬তম ওভারের চতুর্থ বলে তাইবুর রহমানকে সরাসরি বোল্ড করেন এনামুল। তার পরের বলে জাকের আলির হাতে ধরা পড়েন ঢাকার ব্যাটসম্যান আবদুল মজিদ। ফলে গতকালের করা ১০৪ রানের মাথায় সাজঘরে ফিরতে হয় তাকে।

ওভারের শেষ বলে নাজমুল হাসান মিলনকে বোল্ড করে হ্যাটট্রিক পূরণ করেন এনামুল। আগের দিন দুই উইকেটের পর হ্যাট্রিকের মাধ্যমে পাঁচ উইকেট সংগ্রহ করে এই স্পিনার।

তৃতীয় দিন দেড় সেশন খেলে ১০৪ রানে চার উইকেট হারিয়ে দিন শেষ করে সিলেট। শেষ দিন অর্থাৎ চতুর্থ দিন ৭৫ ওভার খেলে দলটি। ছয় উইকেট হারিয়ে সংগ্রহ করে ৩০৩ রান। শেষ পর্যন্ত ম্যাচটিকে ড্র ঘোষণা করা হয়।

দ্বিতীয় ইনিংসেও সিলেটের হয়ে সর্বোচ্চ ৮৭ রানের ইনিংস খেলেন রাজিন সালেহ। এছাড়া ৭৭ ও ৭০ রানে অপরাজিত থেকে মাঠ ছাড়েন জাকের আলি এবং শাহানুর রহমান। ঢাকার হয়ে দুটি করে উইকেট নেন শাহাদাত হোসেন এবং শুভাগত হোম।

সংক্ষিপ্ত স্কোর: 

সিলেট ১ম ইনিংসঃ ২৩৮ অল আউট (১০০ ওভার)

(ইমতিয়াজ ১৪, শানাজ ১০, জাকির ১৫, রাজিন ৬৭, কাপালী ২৮, শাহানুর ২৯, জাকের ৫৫*, এনামুল জুনিয়র ১৪, ইমরান ০, নাবিল ২, ইবাদত ১); (শাহাদাত ৩/৬৪, নাজমুল ০/২০, মোশাররফ ২/৬২, শুভাগত ২/৩৫, তাইবুর ০/৪৪, সাইফ ২/১৩)

ঢাকা ১ম ইনিংসঃ  ৩৪৬ অল আউট (১১৪.৫ ওভার)

(রনি ১৯, মজিদ (আহত অবসর) ১০৪*, সাইফ ৯, রকিবুল ৪০, শুভাগত ৩০, তাইবুর ১৫, নাদিফ ২৮, মিলন ০, মোশাররফ ৫০, অনিক ২ ও শাহাদাত ৩৪*); (ইমরান ১/৪২, নাবিল ১/৫৪, ইবাদত ২/৫৯, এনামুল জুনিয়র ৫/৮৭, শাহানুর ১/৯৭)

সিলেট ২য় ইনিংসঃ ৩০৩/৬ (১২৪ ওভার)

(ইমতিয়াজ ৮, শানাজ ১২, জাকির ০, অলক ৩৯, রাজিন ৮৭ ও এনামুল ৫, জাকের ৭৭*, শাহানুর ৭০*); (শাহাদাত ২/৪৩, তাইবুর ১/৬৮, মোশাররফ ১/৮৩ ও শুভাগত ২/৫২)

মন্তব্য

আরও পড়ুন

বাংলাদেশ-ভারত

মুস্তাফিজকে নিয়ে মাথার খেলায় নেমেছিলেন কোহলি!

|| ক্রিকফ্রেঞ্জি করেসপন্ডেন্ট || টেস্ট সিরিজ শুরুর আগে বাংলাদেশের পেসার মুস্তাফিজুর রহমানকে হুমকি বলেছিলেন বিরাট কোহলি। এটা ভারতীয় অধিনায়কের পরিকল্পনার একটি অংশ ছিল, ধারণা করছেন বাংলাদেশের টেস্ট অধিনায়ক মুমিনুল হক। ভারতের বিপক্ষে টি-টোয়েন্টি

বিস্তারিত
| Cricfrenzy
আপডট:
4291 পঠিত

বাংলাদেশ-ভারত

বাংলাদেশ সাহসী সিদ্ধান্ত নিয়েছেঃ অশ্বিন

|| ক্রিকফ্রেঞ্জি করেসপন্ডেন্ট || ইন্দোর টেস্টে মুমিনুল হকের টস জিতে ব্যাটিংয়ের সিদ্ধান্তকে সাহসী হিসেবে আখ্যা দিয়েছেন ভারতের স্পিন বোলিং অলরাউন্ডার রবীচন্দ্রন অশ্বিন। যদিও ইন্দোরের পেস সহায়ক উইকেটে বাংলাদেশের শুরুতে ব্যাটিং করার সিদ্ধান্ত

স্তারিত
3001 পঠিত

বাংলাদেশ-ভারত

বাংলাদেশ এবং ভারতের পার্থক্য জানালেন অশ্বিন

|| ক্রিকফ্রেঞ্জি করেসপন্ডেন্ট || টেস্টে অভিজ্ঞতার দিক থেকে ভারতের থেকে যোজন দূরত্বে অবস্থান বাংলাদেশের। ভারতের বেশিরভাগ ক্রিকেটারেরই গড়ে ৪০টি করে টেস্ট ম্যাচ খেলার অভিজ্ঞতা রয়েছে। এখানেই বাংলাদেশের সঙ্গে নিজেদের পার্থক্য খুঁজে

স্তারিত
2976 পঠিত

বাংলাদেশ-ভারত

সাংবাদিকদেরও দায় দেখছেন মুমিনুল

|| ক্রিকফ্রেঞ্জি করেসপন্ডেন্ট || সমালোচনা যেকোনো দলকে মানসিকভাবে দুর্বল করে দেয়। বাংলাদেশ দলের ক্ষেত্রে সেটা হচ্ছে প্রতিনিয়ত। বাংলাদেশের টেস্ট অধিনায়ক মুমিনুল হক মনে করেন, সাংবাদিকরাই ক্রিকেটারদের দুর্বল মানসিকতার পেছনে মূল কারণ।

স্তারিত
4291 পঠিত

বাংলাদেশ-ভারত

আমি কৌশলে ভুল করেছিঃ মুমিনুল

|| ক্রিকফ্রেঞ্জি করেসপন্ডেন্ট || ইন্দোর টেস্টের প্রথম ইনিংসে ভারতের শক্তিশালী বোলিং লাইন আপের সামনে ধরাশায়ী হয়েছেন বাংলাদেশের ব্যাটসম্যানরা। যদিও একটা সময় বড় স্কোরের স্বপ্ন দেখাচ্ছিলেন অধিনায়ক মুমিনুল হক এবং উইকেটরক্ষক মুশফিকুর

স্তারিত
2649 পঠিত