১৫ নভেম্বরের মধ্যে অনুষ্ঠিত হবে বিসিবি’র নির্বাচন

১৫ নভেম্বরের মধ্যে অনুষ্ঠিত হবে বিসিবি’র নির্বাচন

বাংলাদেশের ক্রিকেটের সর্বোচ্চ নিয়ন্ত্রক সংস্থা বাংলাদেশ ক্রিকেট বোর্ডের (বিসিবি) আসন্ন নির্বাচন ১৫ নভেম্বরের মধ্যেই অনুষ্ঠিত হবে বলে আশাবাদ ব্যক্ত করেছেন প্রেসিডেন্ট নাজমুল হাসান পাপন। তবে, এর মাঝখানেও কিছু আইনি জটিলতা আছে বলে জানিয়েছেন তিনি। এগুলো সমাধান হলেই নির্বাচন অনুষ্ঠিত হবে বলে নিশ্চিত করেছেন তিনি।

বিসিবির এই জটিলতাটি মূলত ক্রীড়া সচিব আসাদুল ইসলামকে নিয়ে। যাকে ৫ সদস্যের নির্বাচন কমিশনের প্রধান করা হয়েছে। তাকে নিয়ে সমস্যার দ্রুত সমাধান না হলে এর বিকল্প ভাববে বিসিবি। সোমবার (৯ অক্টোবর) সংবাদ মাধ্যমের সাথে আলাপকালে এমনটাই জানিয়েছেন, বিসিবি সভাপতি।

নাজমুল হাসানের ভাষ্যমতে, ‘ক্রীড়া সচিব যাকে নির্বাচন কমিশনের প্রধান করা হচ্ছে তার সেই দায়িত্ব পালনের পথে কিছু আইনি জটিলতা আছে। যা সমাধান করতে সময় লাগতে পারে। সমস্যা সমাধানে যদি বেশি সময় লাগে কিংবা সমাধান না হয়, তাহলে তার বিকল্প ভাববে বিসিবি।’

বিসিবির নির্বাচনকে সামনে রেখে গত বৃহস্পতিবার (৫ অক্টোবর) বোর্ডের  বতর্মান পরিচালনা পর্ষদের সবশেষ বোর্ড সভা হয়। সেখানেই ক্রীড়া সচিবকে প্রধান করে এনএসসির পক্ষ থেকে একজন অ্যাটর্নি জেনারেলের, একজন আইনি পরামর্শক ও বিসিবি প্রধান নির্বাহী কর্মকর্তা নিজামউদ্দিন চৌধুরীর নাম প্রস্তাব করে  ৫ সদস্যের নির্বাচন কমিশন করে তার অনুমোদনের জন্য জাতীয় ক্রীড়া পরিষদকে চিঠি পাঠানো হয় বিসিবির পক্ষ থেকে।

এদিকে, নির্বাচনের অবিচ্ছেদ্য অংশ হিসেবে রোববার (৮ অক্টোবর) ক্লাব, জেলা, বিভাগীয় পর্যায়, খেলোয়াড় ও জাতীয় ক্রীড়া পরিষদ কোটায় কাউন্সিলরশিপ চেয়ে বিসিবির পক্ষ থেকে চিঠি দেয়া হয়েছে বলে জানিয়েছেন বাংলাদেশ ক্রিকেট বোর্ডের সিইও নিজামউদ্দিন চৌধুরী সুজন।

উল্লেখ্য, অনেক আইনি জটিলতার শেষে গত ২ অক্টোবর বিসিবির বার্ষিক সাধারণ সভা  (এজিএম) ও বিশেষ সাধারণ সভায় (ইজিএম) সর্বসম্মতভাবে পাস হওয়া ‘বিসিবি গঠনতন্ত্র (সংশোধিত-২০১৭)’। তারপর তা জাতীয় ক্রীড়া পরিষদ (এনএসসি) অনুমোদন দিলে নির্বাচনের দিকে অগ্রসর হয় বাংলাদেশ ক্রিকেট বোর্ড (বিসিবি)।

Posts Carousel

এই মাত্র

সর্বাধিক মন্তব্য

ভিডিও