‘ইনজুরি আক্রান্ত হলে তো আর কিছু করার নেই..’

‘ইনজুরি আক্রান্ত হলে তো আর কিছু করার নেই..’

আন্তর্জাতিক অঙ্গনে বল হাতে সর্বশেষ তাকে দেখা গিয়েছিলো ২০১৬ সালের অক্টোবরে। সেবার ইংল্যান্ডের বিপক্ষে সিরিজের তৃতীয় ওয়ানডে খেলেছিলেন তিনি। ৬১ রানের বিনিময়ে পেয়েছিলেন দুটি উইকেটও।

এরপরে সেই বছরের নভেম্বরে বিপিএল খেলার সময়ে ইনজুরিতে পরায় নিউজিল্যান্ড সফরে দলের সঙ্গে থাকলেও খেলা হয়নি তার। পরে অবশ্য তার বদলি হিসেবে কামরুল ইসলাম রাব্বিকে নেওয়া হয়েছিলো।

শেষবার ৯-১৩ ফেব্রুয়ারি ভারতের বিপক্ষে ঐতিহ্যবাহী হায়দ্রাবাদ টেস্টে দলে ছিলেন তিনি। যদিও কম্বিনেশনের কারণে ভারতের মাটিতে একমাত্র টেস্টটি খেলতে পারেননি। এভাবেই বারবার ইনজুরি বা কন্ডিশন বিবেচনায় বাদ পড়ছেন টাইগার পেসার শফিউল ইসলাম।

দেশের হয়ে সাদা পোশাকে এখন পর্যন্ত নয়টি ম্যাচে ১৫ উইকেট শিকার করেছেন তিনি। সুযোগ পেলে আরও ভালো করবেন বলেই তার বিশ্বাস। কিন্তু ইনজুরি সমস্যা? সেটা নিয়ে কি ভাবছেন তিনি? বাংলানিউজকে জানালেন,

“ইনজুরির ব্যাপারটা নিয়ে আমিও অনেক ভেবেছি। যখনই দলে ফিরছি তখনই একটা না একটা ইনজুরি আসছে। সবশেষ বিপিএলে ইনজুরিতে পড়ে নিউজিল্যান্ড সিরিজটা মিস হয়েছে। আসলে ইনজুরির ব্যাপারটা পুরোটাই আল্লাহর উপরে।

আমি আমার ফিটনেস ট্রেনিং করে যাচ্ছি। এখন যদি ইনজুরি আসে তাহলেতো আর কিছু করার নেই। তবে যেন ফিরে না আসে সেজন্য চেষ্টা করছি।”

একইদিনে জানালেন আসন্ন অজি সিরিজকে ঘিরে দলের পরিকল্পনার কথাও। চট্টগ্রামের প্রস্তুতি ম্যাচটি কতখানি কাজে লেগেছে সেটাও জানিয়েছেন তিনি। সাংবাদিককে বলেন,

“যথেষ্ট প্রস্তুতি আছে আমদের। আমাদের ফিটনেস ক্যাম্প হয়েছে, নেটে বল করেছি, সবাই ফোকাসে আছে। তো এরকম ফ্লোতে যদি যায় তাহলে অবশ্যই ভালো কিছু হবে।

অবশ্য চট্টগ্রামে বৃষ্টির কারণে প্রস্তুতি ম্যাচটি একটু এদিক ওদিক হয়েছে। দুই দলই এক ইনিংস করে ব্যাটিং করার সুযোগ পেয়েছি। শেষদিনে এক ওভারও খেলা হয়নি। সবমিলিয়ে আমার মনে হয় ভালোই হয়েছে। শেষদিনটা খেলতে পারলে আরও ভালো হতো।”

Posts Carousel

এই মাত্র

সর্বাধিক মন্তব্য

ভিডিও